হংকং-এ অবাক করা বাঁশের কেল্লা!

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

হংকং উন্নত দেশ। আর তাই বাঁশের স্থাপনা সেখানে কমই রয়েছে। এমন উন্নত দেশে বাঁশের স্থাপন রীতিমত অবাক করে দেয়। বাঁশের এ থিয়েটার বানানো হয় প্রতি বছরই। এটি চলে আসছে দীর্ঘ তিন দশক ধরে। ১৮০০ সাল থেকেই এর ঐতিহ্য রয়েছে। হংকং সে সময় ব্রিটিশ উপনিবেশবাদের অধীনে ছিল।

অনেকেই হয়তো ধারনাও করতে পারেনি, বাঁশ দিয়ে যে আকর্ষণীয় থিয়েটার হল তৈরি করা যায়। কিন্তু হংকংয়ের কর্মীরা বাস্তবে তা তৈরি করেই দেখিয়ে দিচ্ছে।

বিভিন্ন উপলক্ষে বাঁশের কাঠামোর ওপর প্যান্ডেল বানানো হয় বাংলাদেশেও। তবে বিপুল সংখ্যক বাঁশ ব্যবহার এ থিয়েটারের বৈশিষ্ট্য। বিপুল সংখ্যক বাঁশ ব্যবহার করে নিপুণভাবে তৈরী করা হয় থিয়েটারটি।

৮১ ফুট প্রস্থ ও ১৩০ ফুট দৈর্ঘ্যবিশিষ্ট এই থিয়েটারটি। প্রায় ৪৫ ফুট উঁচু এর উচ্চতা। এতে থিয়েটার উপভোগ করতে পারে এক হাজার মানুষ।

বাঁশের কেন? আরো বহু উপাদানই তো রয়েছে থিয়েটার তৈরির জন্য। কিন্তু কেন এ উপকরণটি দিয়েই থিয়েটার বানাতে হবে? এ প্রসঙ্গে আয়োজকরা বলছেন, এটি হংকংয়ের ঐতিহ্যের অংশ হয়ে উঠেছে। এছাড়া পরিবেশের জন্যও সহায়ক এ বাঁশের স্থাপনা। এটি যে কোনো স্থানে সহজেই স্থাপন করা যায়। এরপর দ্রুত খুলেও ফেলা যায়।

বহু মানুষই এ থিয়েটার ভবনটি দেখে অবাক হন। কিভাবে এটি বানানো হয়েছে তা জেনে আরো আশ্চর্য হন তারা।

কমেন্টস

কমেন্টস