গৃহবধূকে মেরে স্বামী-শ্বশুর-শাশুড়ি পলায়ন

ডেইলি মিরর ২৪ ডেস্কঃ

লালমনিরহাট সদর উপজেলার হারাটি ইউনিয়নের কিসামত হারাটি গ্রামে গৃহবধুকে হত্যা করা হয়েছে। পরে সেই লাশ রেখে পালিয়েছে গৃহবধুর স্বামী,শ্বশুর ও শাশুড়ি।

মঙ্গলবার বিকেলে সাইদা বেগম (২৪) নামে এই গৃহবধূর লাশ পুলিশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছে। নিহত সাইদা উপজেলার কুলাঘাট ইউনিয়নের খাটামারী গ্রামের আবুল কাশেমের মেয়ে এবং হারাটি ইউনিয়নের কিসামত হারাটি গ্রামের মানিক মিয়ার স্ত্রী।

পুলিশ এলাকাবাসী ও নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালের ডিসেম্বর মাসে মানিক মিয়ার সাথে বিবাহ হয় সাইদা বেগমের। কিন্ত বেশ কিছুদিন থেকে স্বামীর সাথে মনোমালিন্য চলছিল তাদের।

এদিকে, সোমবার রাতে স্বামী মানিক মিয়া মোবাইল ফোনে তার শ্বশুর-শাশুড়িকে তার স্ত্রী অসুস্থ বলে জানায়। পরে মঙ্গলবার সকালে তারা মেয়ে জামাইর বাড়িতে এলে উঠানে মেয়ের চৌকির ওপর মেয়ের লাশ দেখতে পায়। এ সময় তারা স্থানীয় লোকজন ও চেয়ারম্যানকে জানায়।

বিকেলে খবর পেয়ে সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করে। তবে নিহতের স্বামী ও পরিবারের লোকজন পলাতক থাকায় কাউকে আটক করতে পারেনি। নিহতের শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানা গেছে।

সদর থানার ওসি(তদন্ত) উদয় কুমার মন্ডল বলেন, ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

কমেন্টস

কমেন্টস